সীমান্ত থেকে বাংলাদেশির লাশ উদ্ধার

সীমান্ত থেকে বাংলাদেশির লাশ উদ্ধার

অবৈধভাবে সীমান্ত দিয়ে ভারতে প্রবেশকালে নিখোঁজের ১০ দিন পর এক বাংলাদেশি নাগরিকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৯ সেপ্টেম্বর) দুপুরে ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার রত্নাই সীমান্ত এলাকা থেকে আবু নাঈম নামে ওই যুবকের লাশ উদ্ধার করা হয়।

পরিবারের স্বজন ও জনপ্রতিনিধিরা জানান, গত ১৮ সেপ্টেম্বর বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার কান্দিপুর গ্রামের জালাল উদ্দিনের ছেলে আবু নাঈমসহ কয়েকজন মিলে কোটপাড়া সীমান্তের ৩৮৩ নং পিলার সংলগ্ন এলাকা দিয়ে অবৈধভাবে ভারতে প্রবেশের চেষ্টা করে। এসময় ভারতের ১৭১ নং সোনামতি ক্যাম্পের বিএসএফ সদস্যরা তাদের ধাওয়া দেয়। এসময় সবাই বাংলাদেশে ফেরত আসলেও পাওয়া যায়নি নাঈমকে। পরে আজ দুপুরে ওই উপজেলার রত্নাই সীমান্তের ৩৮১ নং পিলার সংলগ্ন এলাকার নাগর নদীর পাশ থেকে মরদেহটি উদ্ধার করে বিজিবি। পরে বালিয়াডাঙ্গী থানা পুলিশ ময়নাতদন্ত শেষে লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করে।

এ বিষয়ে ৫০ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্নেল শহিদুল ইসলামের সাথে ফোনে যোগাযোগ করা চেষ্টা করা হলেও তিনি ফোন তোলেননি।

তবে বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার আমজানখোর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আকালু ডোঙ্গা জানান, ধারণা করা হচ্ছে বিএসএফ তাকে মেরে লাশ নদীতে ফেলে দিয়েছে। বন্যার কারণে নদীতে পানি বেশি থাকায় লাশ খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। আজ তার লাশ কাঁটা তাঁরের বেড়ার পাশ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। আমরা এর তীব্র প্রতিবাদ জানাই।

সূত্রঃ সময় নিউজ

আরও পড়ুন